শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:২২ পূর্বাহ্ন

ক্রেডিট কার্ড নম্বর ও পাসওয়ার্ড চুরি করে টিকটক

প্রতিনিধির / ৮১ বার
আপডেট : মঙ্গলবার, ১১ অক্টোবর, ২০২২
ক্রেডিট কার্ড নম্বর ও পাসওয়ার্ড চুরি করে টিকটক
ক্রেডিট কার্ড নম্বর ও পাসওয়ার্ড চুরি করে টিকটক

ব্যবহারকারী সার্চ বারে কিছু লিখে সার্চ করার সময় কী টাইপ করছেন তার ওপর নজর রাখে বাইটড্যান্স মালিকানাধীন শর্ট ভিডিও তৈরির প্ল্যাটফরম টিকটক অ্যাপ। ক্রেডিট কার্ড নম্বর আর পাসওয়ার্ডের মতো ব্যবহারকারীর গোপন ও স্পর্শকাতর তথ্য-উপাত্তও চুরি করে নেওয়ার সক্ষমতা আছে টিকটক অ্যাপের। অ্যাপটির মাধ্যমে বাইরের কোনো ওয়েবসাইটে গেলে ওই ওয়েবসাইটে ব্যবহারকারীর কর্মকাণ্ডের ওপরও নজর রাখতে পারে টিকটক।

মার্কিন আইনপ্রণেতাদের চাপের মুখেও চীনে ডেটা পাঠানো বন্ধ প্রশ্নে সুনির্দিষ্ট কোনো উত্তর দেয়নি টিকটক। এ বিষয়ে কোনো প্রতিশ্রুতি মেলেনি একাধিক প্রচেষ্টায়। ব্যবহারকরীদের ডেটা পাঠানো প্রশ্নে বারবার পাশ কাটিয়ে যান জ্যেষ্ঠ টিকটক কর্মকর্তা ।

এক সফটওয়্যার গবেষকের সাম্প্রতিক গবেষণায় উঠে এসেছে, অ্যাপের ব্রাউজার অন্য কোনো ওয়েবসাইট অ্যাক্সেস করলে অ্যাপটি তাতে নতুন কোড জুড়ে দেয় ব্যবহারকারীর কর্মকাণ্ডের ওপর নজর রাখার জন্য।

ভিয়েনাভিত্তিক সফটওয়্যার গবেষক ফিলিক্স ক্রাউসের সাম্প্রতিক এক গবেষণায় উঠে এসেছে, ব্যবহারকারী টিকটক অ্যাপে থাকা কোনো লিংকে ক্লিক করলে অ্যাপটি ওই ওয়েবসাইটের সঙ্গে বাড়তি কোড জুড়ে দেয়; যার মাধ্যমে ব্যবহারকারীর কিবোর্ডের কোন কোন ‘কি’ চাপছেন এবং সাইটের কোনো আইটেমের ওপর ট্যাপ করছেন এমন সব তথ্য সংগ্রহ করে নেয় টিকটক অ্যাপ।

প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট সিনেট জানিয়েছে, লিংকে ক্লিক করার পর সাইটগুলো ক্রোম বা সাফারির মতো ডিফল্ট কোনো ব্রাউজারে না খুলে টিকটকের নিজস্ব ইন-অ্যাপ ব্রাউজারে খোলায় বাড়তি কোড জুড়ে দেওয়ার সুযোগ পায় অ্যাপটি।

এ প্রসঙ্গে মার্কিন বাণিজ্য প্রকাশনা ফোর্বসকে ক্রাউস বলেছেন, “কোম্পানিটি জেনেশুনেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এটি কোনো সফটওয়্যার নির্মাণের গুরুত্বহীন অংশ নয়। ভুল করে অথবা অপ্রত্যাশিতভাবে হয়না এ বিষয়গুলো।”

প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট সিনেট জানিয়েছে, অ্যাপ-যাচাইকারী কোম্পানি ‘ফাস্টলেন’-এর প্রতিষ্ঠাতা ক্রাউস। বছর পাঁচেক আগে কোম্পানিটি কিনে নিয়েছে গুগল।

টিকটক অ্যাপে ব্যবহারকারীর নিজস্ব তথ্যের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে আগেই। প্ল্যাটফর্মটির মূল কোম্পানি চীনের বাইটড্যান্স ব্যবহারকারীদের তথ্য চুরি করে দেশের সরকারকে সরবরাহ করছে– এমন অভিযোগও তুলেছেন যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ
%d bloggers like this:
%d bloggers like this: